previous arrow
next arrow
previous arrownext arrow
Slider
Loading...
আপনি এখানে  প্রচ্ছদ  >  মাধবপুর  >  বর্তমান নিবন্ধ

হতাশায় দিন পার করছে মাধবপুরের ক্ষুদ্র কাপড় ব্যবসায়ীরা

 জুলাই ৩০, ২০২০  /  কোন মন্তব্য নাই

 

মো জাকির হোসেন, মাধবপুর : করোনাকালে সবকিছুতে বিপর্যয় ঘটায় কোনো প্লাটফর্মেই আসলে কোনো কাজের কাজ হচ্ছেনা। সবকিছুই যেন এলোমেলো করে দিয়েছে এই মহামারী। হবিগঞ্জের মাধবপুরে যেমন নিম্ন আয়ের ক্ষুদ্র কাপড় ব্যবসায়ীরা আর্থিক সংকটে পড়েছে ঠিক তেমনি উচ্চ আয়ের ব্যবসায় প্রতিষ্ঠানগুলোর মালিকরাও বিপাকে পড়েছে। তবে এক্ষেত্রে সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত হয়েছে ক্ষুদ্র কাপড় ব্যবসায়ীরা। কারণ বড় বড় কাপড় ব্যবসায়ীরা নানা কৌশল অবলম্বন করে তাদের ক্ষতির পরিমাণ মোটামুটি পুষিয়ে নিতে পারলেও পারেনি ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীরা। এদিকে ঈদুল ফিতর যেতে না যেতেই ঘুরেফিরে ঈদুল আযহার আগমন হতে যাচ্ছে।

 

ছবি: মাধবপুরের ক্ষুদ্র কাপড় ব্যবসায়ীদের দোকান

 

কিন্তু চারদিকে যেন সুনশান-নিস্তব্ধতা বিরাজ করছে। খুব একটা আমেজ দেখা যাচ্ছে না মাধবপুর বাজারে, নেই আগের মতো উৎসবমুখর পরিবেশ। ঠিক যেমনটা গত ঈদুল ফিতরেও লক্ষ্য করা গিয়েছিল। এই বৈশ্বিক মহামারী করোনা ভাইরাস চলমান পৃথিবীর অধিকাংশ কাজই থেমে দিয়েছে বলতে গেলে। এদিকে করোনা কালীন ক্ষতির পরিমাণের ভার সইতে পারছেনা আমাদের দেশের বেশিরভাগ নিম্ন স্তরের মানুষ। যদিও পরে দেশে লকডাউন তুলে নেওয়ায় কাজের গতি কিছুটা স্বাভাবিক হয়েছে কিন্তু দীর্ঘদিনের লকডাউন মানুষকে অর্থভাবে ফেলেছিলই।

এই ক্ষতির পরিমাণ কতটুকু কাটিয়ে উঠেছে স্থানীয় ক্ষুদ্র ব্যবসায়ীগুলো ও তাদের বর্তমান আয়ের অবস্থা কেমন এটা জানতে সরেজমিনে মাধবপুর পৌর বাজারের বিভিন্ন গলিতে গড়ে উঠা স্থানীয় মার্কেটগুলোতে দেখা যায়। সেখানে কাপড় ব্যবসায়ী ফোর-জি কালেকশনের স্বত্ত্বাধিকারী টিটু সরকার বলেন, করোনার ভাইরাসের কারণে লকডাউন অবস্থায় দোকানপাট বন্ধ ছিল কয়েকমাস এই সময়টাতে ব্যবসা করতে পারিনি অনেক ক্ষতি হয়েছে। আর্থিকভাবে। এখনও যে খুব ভালোভাবে ব্যবসা করতে পারছি তাও কিন্তু নয়। শেখ ম্যানশন মার্কেটের অর্পন কালেকশনের মালিক টিটু সরকার (২) বলেন আগের মতো কাস্টমার নেই। বিক্রি খুব কম হচ্ছে আজকাল বলতে গেলে মানুষ আসছে না।

আগে ঈদের মৌসুম আসলে ব্যস্ততায় দিন কাটাতাম। এমনকি অনেক সময় রাতেও ঘুমাতে পারিনি ঈদের ঝামেলায়। কিন্তু এখন দোকানে বসে বসে সময় পার করছি শুধু শুধু যদিও ঈদ আসতে বেশি দিন নেই। তবুও কোনো ক্রেতার সন্ধান তেমন মিলছে না মার্কেটে।

  • প্রকাশক ও সম্পাদকঃ সুশান্ত দাস গুপ্ত

  • যেভাবে নিউজ পাঠাবেন

    নিউজ পাঠাতে ইচ্ছুক যে কেউ news@amarhabiganj.com এই ঠিকানায় নিজের নাম, ঠিকানা ও মোবাইল নাম্বার দিয়ে নিউজ পাঠাতে পারেন। আমরা যাচাই বাচাই শেষে আপনার নিউজ যথারীতি প্রকাশ করবো। উল্লেখ্য, নিউজগুলো অবশ্যই হবিগঞ্জ সম্পর্কিত হতে হবে।

  • জরুরী নোটিশ

    দৈনিক আমার হবিগঞ্জ এর প্রতিটি নিউজ ১০০ ভাগ মৌলিক। যদি কোন সংবাদকর্মী অন্য কারো বা অন্য কোন নিউজ কপি করেন এবং সেটা প্রমানিত হয় তাহলে তাকে বিনা নোটিশে দৈনিক আমার হবিগঞ্জ থেকে বরখাস্ত করা হবে এবং যথারীতি আইনী প্রক্রিয়ার আওতায় এনে শাস্তির ব্যবস্থা করা হবে।

You might also like...

মাধবপুরে দারিদ্রের পাশে শাহজাহান পুর প্রবাসী উন্নয়ন সংগঠন

আরও পড়ুন →

This function has been disabled for Amar Habiganj-আমার হবিগঞ্জ.

Don`t copy text!