ঢাকাসোমবার , ১৫ আগস্ট ২০২২
আজকের সর্বশেষ সবখবর

সদর উপজেলা পরিষদের কার্যক্রম এখন আবু জাহির এমপি’র বাসায় !

স্টাফ রিপোর্টার
আগস্ট ১৫, ২০২২ ৯:০১ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

কিডনি, লিভার সিরোসিস, স্ট্রেকে প্যারালাইজড, হৃদরোগী এবং থ্যালাসেমিয়ায় আক্রান্ত রোগীদের মাঝে এককালীন চিকিৎসা বাবদ ৫০ হাজার টাকা করে আর্থিক অনুদানের চেক বিতরণ করেছেন হবিগঞ্জ-৩ আসনের সাংসদ অ্যাডভোকেট আবু জাহির।

এদিকে সম্পুর্ণ নিজের ক্ষমতাবলে উপজেলা প্রশাসন ও উপজেলা পরিষদকে পাশ কাটিয়ে তার নিজের বাসভবনে ব্যানার টাঙিয়ে এই চেক বিতরণ করেন তিনি।

রবিবার (১৪ আগস্ট) দুপুরে উপজেলা সমাজসেবা অধিদপ্তরের আয়োজনে এই চেক বিতরণ করা হয়। যেখানে এই অনুষ্ঠানটি সদর উপজেলা পরিষদে হওয়ার কথা সেখানে না করে তার নিজের বাসায় করায় বিষয়টি নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়ার সৃষ্টি হয়েছে। মুলত এমপি আবু জাহির এখন তার বাসা থেকেই সদর উপজেলা পরিষদের সার্বিক কার্যক্রম পরিচালনা করছেন বলে প্রতিয়মান হয়।

ছবি : এমপির বাসায় উপস্থিত চেক গ্রহীতারা

এই বিষয়ে জেলা সমাজসেবা কর্মকর্তা রাশেদুজ্জামান চৌধুরীর সাথে কথা হলে তিনি জানান,আমি এই জেলায় নতুন এসেছি। আর বিতরণে দিন সিলেটে আমার একটা সেমিনার থাকায় এই বিষয়ে আমি এর চেয়ে বেশি কিছু বলতে পারছি না। তবে আমার এই অনুদানগুলো যাচাই-বাচাই করে উপজেলা পরিষদে দিয়ে দেই। তারপর সেখান থেকে স্থানীয় এমপির সাথে সমন্বয় করে কবে কোন দিন প্রদান করা হবে সেটা ঠিক করা হয়। এমপি মহোদয়ের বাসায় এসব বিতরণ করার কোন নিয়ম আছে কিনা এই প্রশ্ন করা হলে তিনি বিষয়টা দেখবেন বলে জানিয়ে দেন।

সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা নাজরাতুন নাঈম (অতিরিক্ত দায়িত্ব) বলেন,এসব অনুদানের কিছু অংশ আমরা কয়েক দিন পূর্বে বিতরণ করেছি। বাকিগুলোও ডিসি স্যারের উপস্থিতি বিতরণ করার কথা ছিল। আমি বিষয়টা খোঁজ নিয়ে আপনাকে পরে জানাচ্ছি।

ছবি : চেক গ্রহীতাদের একাংশ

বিস্তারিত জানতে সদর উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান মোতাচ্ছিরুল ইসলাম দৈনিক আমার হবিগঞ্জকে জানান,বিগত দিনে তো আমার এসবের চেকগুলো উপজেলা পরিষদের মাধ্যমেই প্রদান করেছে। কিন্তু হুট করে কি কারণে প্রশাসন এবং উপজেলা পরিষদকে পাশ কাটিয়ে একজনের বাসায় চেক বিতরণ করা হয়েছে সেটা আমার বোধগম্য নয়।

Developed By The IT-Zone