ঢাকাWednesday , 6 December 2023

নবীগঞ্জে ৮ মাসে ও অধরা ধর্ষণ মামলার আসামি মাসুম

Link Copied!

নবীগঞ্জে ধর্ষণ মামলার আসামি মাসুম তালুকদার (২৪)কে আট মাসেও গ্রেপ্তার করতে পারেনি পুলিশ। তার বিরুদ্ধে ফুসলিয়ে ভয়ভীতি দেখিয়ে ধর্ষণের অভিযোগে আদালতে দায়ের করা মামলায় গ্রেপ্তারি পরোয়ানা রয়েছে।

ভুক্তভোগী মাদ্রাসা ছাত্রী ও জেলা গোয়েন্দা সংস্থার তদন্ত সংশ্লিষ্টরা দৈনিক আমার হবিগঞ্জ’কে জানান, চলতি বছরের ২০ মার্চ

নবীগঞ্জ উপজেলার শেরপুরের বাড়ির পাশেই ধর্ষণের শিকার হন জনৈক মাদ্রাসা ছাত্রী। এ ঘটনায় ১৩জুন একই অভিযোগে থানায় গেলে রহস্যজনক কারনে মামলা নেয়নি পুলিশ। পরে কোন উপায়ন্তর না পেয়ে হবিগঞ্জ নারী ও শিশু নির্যাতন ট্রাইব্যুনাল-৩ এ মামলা দায়ের করেন ভুক্তভোগীর পরিবার।

মামলা সুত্রে জানা যায়, নবীগঞ্জ উপজেলার কামালপুর দারুল উলুম মাদ্রাসার অষ্টম শ্রেণীর জনৈক ছাত্রীকে প্রায়ই রাস্তাঘাটে প্রেম নিবেদন করতঃ পাশ্ববর্তী শেরপুর গ্রামের ফরিদ মিয়া তালুকদারের পুত্র মাসুম তালুকদার (২৪)। এক পর্যায়ে ফুসলিয়ে বিয়ের প্রলোভনে ছাত্রীকে ধর্ষন করে সে ।

পরে অন্তঃসত্ত্বা হয়ে পড়লে বিয়ে করতে অস্বীকৃতি জানায় মাসুম। এ ঘটনায় আদালতে ধর্ষিতা ছাত্রীর মা বাদী হয়ে মামলা দায়ের করলে দীর্ঘ তদন্তে সত্যতা পেয়ে প্রতিবেদন দাখিল করে জেলা গোয়েন্দা পুলিশ। মামলার বাদী দৈনিক আমার হবিগঞ্জ’কে জানান, মামলায় গ্রেফতারি পরোয়না থাকলেও প্রকাশ্যে চলাফেরা করছে মাসুম তালুকদার।

আদালত থেকে গ্রেফতারি পরোয়ানা আদেশের ৮মাস পার হলেও অধরাই রয়ে গেছে সে। এদিকে, অভিযুক্ত আসামীকে গ্রেফতারের চেষ্টা চলছে বলে জানিয়েছেন নবীগঞ্জ থানার ওসি মাসুক আলী।