ঢাকাবুধবার , ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নবীগঞ্জে দুই গ্রামের সংঘর্ষে মহাসড়ক দেড় ঘন্টা বন্ধ

অনলাইন এডিটর
ফেব্রুয়ারি ২৪, ২০২১ ৭:২৬ অপরাহ্ণ
Link Copied!

ছবি: মহাসড়ক বন্ধ দেড় ঘন্টা  নবীগঞ্জে দুই গ্রামের সংঘর্ষে।

মোঃ ফাহাদ আহমদ: হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলার মডেল বাজার এলাকায় দুই গ্রামের বাসিন্দাদের সংঘর্ষে প্রায় দেড় ঘন্টা মহাসড়ক বন্ধ থাকার পর যানচলাচল স্বাভাবিক হয়েছে।

বুধবার (২৪ ফেব্রুয়ারি) বেলা দেড়টার দিকে উপজেলার মংলাপুর গ্রামবাসী ও পিটুয়া গ্রামের বাসিন্দাদের মধ্যে এই সংঘর্ষ শুরু হয়। ফলে ঢাকা-সিলেট মহাসড়কে সব ধরনের যান চলাচল বন্ধ হয়ে যায়।

এ সংঘর্ষের ঘটনায় দুপক্ষের প্রায় অর্ধশতাধিক নারী-পুরুষ গুরুতর আহত ও মহাসড়কের পাশের দোকানপাট ভাংচুরের ঘটনাও ঘটেছে।পরে খবর পেয়ে নবীগঞ্জ থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে আসলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এতে দুই গ্রামের সংঘর্ষ থামে বিকেলে ৩টার দিকে। এবং প্রায় দেড় ঘন্টা মহাসড়ক বন্ধ থাকার পর যানচলাচল স্বাভাবিক হয়।

দুই গ্রামের বাসিন্দাদের সংঘর্ষের ঘটনায় নবীগঞ্জ থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মোহাম্মদ ডালিম আহমেদ জানান, খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে আসলে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আসে। এখন
পরিস্থিতি স্বাভাবিক রয়েছে। এব্যাপারে মংলাপুর গ্রামের সোহেল আহমেদ জানান-কোনো একটা ভুয়া ফেইসবুক আইডি থেকে ৪নং ওয়ার্ডের ইউপি সদস্য ইকবাল হোসেনের
দুর্নীতি খবর প্রকাশ পায়।

এতে তাহার সন্দেহের বাশে আমার বিরুদ্ধে অভিযোগ আনে। আমাকে এই বিষয়ে ইউপি সদস্য কর্তৃক জিজ্ঞাসা করা হলে আমি ভুয়া আইডির সাথে সম্পৃক্ত নয় বলে জানাই। পরে সন্দেহের জেড়ধরে পূর্ব-পরিকল্পিতভাবে আমাকে ও আমার ভাইকে হত্যার উদ্দেশ্যে ইউপি সদস্যগং কর্তৃক মডেলবাজার এলাকায় সন্ত্রসী হামলা চালানো হয়।

ইউপি সদস্য ইকবাল হোসেন এর সাথে যোগাযোগ হলে তিনি জানান- আমাদের গ্রামের পাশে চাষকৃত কৃষি জমিন রয়েছে। জমিগুলোতে আমরা ধানের চারাও রোপন করেছি। ফলে আমি ও এলাকাবাসী সোহেল এর ভাই মোস্তফাকে হাওড়ে তাদের হাঁস না ছাড়তে বলেছি।

এ সূত্রে মডেলবাজার এলাকায় মোস্তফার সাথে কথাকাটি হলে সোহেল চলে আসে। পরে আমার সাথে থাকা সিএনজির ড্রাইভার ও আমার উপরে তারা দুইভাই মিলে লাঠিদিয়ে হামলা চালায়। একপর্যায়ে সংঘর্ষ দুই গ্রামবাসীর মধ্যে গিয়ে বিশাল আকার ধারন করে।

Developed By The IT-Zone