ঢাকাTuesday , 17 October 2023
আজকের সর্বশেষ সবখবর

জেলা জুড়ে অবৈধ করাতকলের ছড়াছড়ি : চলছে নিয়মিত মাসোহারা আদায়

তারেক হাবিব
October 17, 2023 9:17 am
Link Copied!

হবিগঞ্জ জেলায় সরকারি নিয়মকে তোয়াক্কা না করে অবৈধভাবে গড়ে উঠেছে নামে বেনামে শতাধিক করাতকল। পরিবেশ ও বন বিভাগের ছাড়পত্র ও লাইসেন্স ছাড়াই যেখানে-সেখানে গড়ে উঠেছে করাত কলগুলো।

এসব করাতকলে সাবাড় হচ্ছে গাছপালা। নিয়মনীতির তোয়াক্কা না করে বিভিন্ন শিক্ষাপ্রতিষ্ঠান ও সরকারি স্থাপনার পাশে গড়ে উঠেছে বেশকিছু করাতকল। এ কারণে শব্দদূষণের শিকার হচ্ছে কোমলমতি শিক্ষার্থীরা।

বন বিভাগের অসাধু কিছু কর্মকর্তা-কর্মচারী এসব অবৈধ করাতকল থেকে নিয়মিত মাসোহারা আদায় করছেন বলে অভিযোগ রয়েছে। এতে করে সরকার হারাচ্ছে বিপুল পরিমাণ রাজস্ব।

হবিগঞ্জ জেলা বন বিভাগ সূত্রে জানা গেছে, বন আইন অনুযায়ী কোনো করাতকল মালিক লাইসেন্স না নিয়ে ব্যবসা পরিচালনা করতে পারবেন না। লাইসেন্স নেওয়ার পর প্রতিবছর নবায়ন করতে হবে।

করাতকল স্থাপনের জন্য বন বিভাগের লাইসেন্স পাওয়ার পর পরিবেশ অধিদপ্তরের ক্যাঁচ থেকেও ছাড়পত্র নিতে হয়। এসব কাগজপত্র ছাড়া করাতকল স্থাপন করা যাবে না।

সোমবার (১৬অক্টোবর) সরেজমিনে বানিয়াচং উপজেলার বিভিন্ন এলাকা ঘুরে অন্তত ৫টি অবৈধ করাতকলের সন্ধান পাওয়া যায় যেগুলোর কোনটারই পরিবেশ কিংবা বন বিভাগের ছাড়পত্র নেই।

পরিচয় গোপন করে কথার ছলে জানতে চাইলে এক করাতকল মালিক বলেন, বন বিভাগের লোকদের নিয়মিত মাসোহারা প্রদানের মাধ্যমে চলছে তাদের করাতকল। মাসের নির্দিষ্ট সময় আসলেই পরিশোধ করতে হয় তাদের চাহিদামত টাকা।

বিস্তারিত তথ্য উল্লেখ করে বিষয়টি শায়েস্তাগঞ্জ ফরেস্ট রেঞ্জার রামকৃষ্ণ ঘোষের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ‘মাসোহারা আদায়ের বিষয়টি সত্য না। এ রকম কোন তথ্য পাওয়া গেলে ব্যবস্থা নেয়া হবে’। তবে মাসোহারা আদায়ের বিষয়টি অস্বীকার করলেও ওই এলাকায় দীর্ঘদিন ধরে থাকা অবৈধ করাতকলগুলোতে অভিযান বা তদারকির কোন কোন তথ্য নেই তাদের কাছে।