ঢাকারবিবার , ২৮ আগস্ট ২০২২
আজকের সর্বশেষ সবখবর

বানিয়াচঙ্গে সর্দার নিযুক্তির পর পটকা ফুটানোর জেরে সংঘর্ষে আহত ৩০

ইমদাদুল হোসেন খান
আগস্ট ২৮, ২০২২ ৯:৩৮ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

বানিয়াচঙ্গে সর্দার নিযুক্তির পর পটকা ফুটানোর জেরে সংঘর্ষে অন্তত ৩০ জন আহত হয়েছে। শনিবার (২৭ আগস্ট) পুরানবাগ ৭ মহল্লা ছান্দে এ ঘটনা ঘটেছে।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, ছান্দ সর্দার নির্বাচনের জন্য সকাল ১১টায় তুষার স্মৃতি প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে ছান্দের সর্বসাধারণের এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। এতে সভাপতিত্ব করেন ৩নং বানিয়াচং দক্ষিণ-পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আরফান উদ্দিন।

উপস্থিত ছিলেন বানিয়াচং উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও নন্দীপাড়া ৭ মহল্লা ছান্দের সর্দার বীর মুক্তিযোদ্ধা আমীর হোসেন, বানিয়াচং উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান ও শরীফখানী ছান্দের সর্দার ইকবাল হোসেন খান, ১নং বানিয়াচং উত্তর-পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান খান, ৪নং বানিয়াচং দক্ষিণ-পশ্চিম ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান আনোয়ার হোসেন, বড়বাজার ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব জয়নাল আবেদীনসহ এলাকার গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ।

পুরানবাগ ছান্দের সর্দার আফতাব উল্লার মৃত্যুতে পদটি শূন্য হলে এ পদে ৩ জন প্রার্থী হন। তারা হলেন দক্ষিণ নন্দীপাড়া মহল্লার আলহাজ্ব আবুল হোসেন, পুরানবাগ মহল্লার মতিউর রহমান ও মধুখানী মহল্লার খালেদ আহমদ।
উপস্থিত গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ বোর্ডের মাধ্যমে আলহাজ্ব আবুল হোসেন ও খালেদ আহমদকে ছান্দের উপদেষ্টা এবং মতিউর রহমানকে ছান্দ সর্দার হিসেবে ঘোষণা দিলে ছান্দের সর্বসাধারণসহ ৩ প্রার্থীই মেনে নেন।

এসময় উপস্থিত জনপ্রতিনিধিসহ গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ ছান্দবাসীকে এনিয়ে কোনো ধরনের বাড়াবাড়ি না করার এবং সবাই মিলেমিশে চলার অনুরোধ জানালে সবাই তাতে সায় দেন।

কিন্তু বিকাল ৩টায় পটকা ফুটানোকে কেন্দ্র করে ছান্দের নবনিযুক্ত উপদেষ্টা আলহাজ্ব আবুল হোসেন ও ছান্দ সর্দার মতিউর রহমানের লোকজন সংঘর্ষে জড়িয়ে পড়েন। এতে উভয়পক্ষের অন্তত ৩০ জন আহত হয়।

সংঘর্ষ চলাকালে খবর পেয়ে ১নং বানিয়াচং উত্তর-পূর্ব ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মিজানুর রহমান খান, বড়বাজার ব্যবসায়ী কল্যাণ সমিতির সভাপতি আলহাজ্ব জয়নাল আবেদীন ও বানিয়াচং থানার অফিসার ইনচার্জ অজয় চন্দ্র দেবের নেতৃত্বে থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনেন।

এ ব্যাপারে ওসি অজয় চন্দ্র দেবের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি বলেন, ৮/১০ জন আহত হতে পারে। এনিয়ে থানায় কোনো মামলা দায়ের হয়নি বলেও তিনি জানান।

আহতদের মধ্যে শফিকুল (৪২), উজ্জ্বল (৩০), শিহাব (২০), ইলিয়াছ (৫০) ও আলমগীর মিয়া (৫৫) পাওয়া গেলেও বাকীদের নাম পাওয়া যায়নি।রাতে এ রিপোর্ট লেখার সময় গুরতর আহত ৩ জনকে হবিগঞ্জ নিয়ে যাবার খবর পাওয়া গেলেও তাদের নাম জানা যায়নি।

Developed By The IT-Zone