ঢাকাসোমবার , ১২ এপ্রিল ২০২১
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নবীগঞ্জ সরকারি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষে’র পদত্যাগ চেয়ে লিখিত অভিযোগ

দৈনিক আমার হবিগঞ্জ
এপ্রিল ১২, ২০২১ ৯:২২ অপরাহ্ণ
Link Copied!

জাবেদুর রহমান, নবীগঞ্জ প্রতিনিধি: নবীগঞ্জ সরকারি ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ও অফিসের লোকজনের দূর্নীতি ও অনিয়ম ঠেকাতে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তার বরাবর একটি লিখিত অভিযোগ দিয়েছে নবীগঞ্জ সরকারি কলেজের শিক্ষার্থীরা।

কলেজের শিক্ষার্থী ইশতিয়াক মোহাম্মদ আপন, তায়েফ চৌধুরী ও সাজু আহমেদ হৃদয় এর সাক্ষরিত অভিযোগ পত্রে উল্লেখ করা হয়, নবীগঞ্জ সরকারি ডিগ্রি কলেজের ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ ও অফিসের লোকজনের অনিয়ম সহ দুর্নীতির মাত্রা অধিক হারে বেড়ে চলেছে। এই ব্যাপারে নবীগঞ্জ সরকারি কলেজের শিক্ষার্থীরা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের নিকট বিচার প্রার্থী হলে, তিনি আমাদেরকে কোনো সুরাহা না করে অফিসের লোকদেরকে উৎসাহিত দিতে থাকেন। অভিযোগ পত্রে আরো উল্লেখ করা হয়, একাদশ ১ম বর্ষের শিক্ষার্থীরা ২য় বর্ষে পদার্পণ ভর্তির জন্য ১৯০০/- (এক হাজার নয়শত) টাকা ও অতিরিক্ত শিওরক্যাশের মাধ্যমে ১০০/- (একশত) টাকা করিয়া শিক্ষার্থীদের নিকট থেকে নিচ্ছেন। যাহার কোনো রশিদ দেওয়া হয় না।

 

 

ছবি : লিথিত আবেদনের কপি

 

 

এছাড়া, নবীগঞ্জ সরকারি ডিগ্রি কলেজের কম্পিউটার অপারেটর নয়নমনি সরকার উক্ত কলেজের শিক্ষার্থীদের সহিত আচার-আচরণ খুবই খারাপ করে। বিভিন্ন কাজের জন্য তাহার নিকট গেলে সে অতিরিক্ত টাকা ছাড়া কোনো কাজেই করে না৷ টাকা না দিলে শিক্ষার্থীদের সহিত খারাপ আচারণ করে অফিস কক্ষ হতে বাহির করে দেয়। অনার্স শিক্ষার্থীদের জন্য অনিয়মভাবে প্রত্যেক বৎসর ৪টি পরীক্ষা নেওয়া হয় এবং প্রত্যেক পরীক্ষাতে পরীক্ষার্থীদের নিকট হইতে ৪০০/- (চারশত) টাকা হারে ফি নেওয়া হয়। উক্ত টাকার ও কোনো রশিদ প্রদান করা হয় না। উক্ত কলেজের শিক্ষার্থীদের উপবৃত্তির জন্য আবেদনের ক্ষেত্রে প্রত্যেকের নিকট হইতে ১০০/- (একশত) টাকা ও তাহার অধিক হারে টাকা নিতেছে। যাহার কোনো রশিদ প্রদান করা হয় না।

আমরা শিক্ষার্থীরা ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের নিকট বিচার প্রার্থী হলে তিনি অফিসের লোকজনকে কিছু না বলে উল্টোি আমাদেরকে কঠোরভাবে কথাবার্তা বলে আমাদেরকে অফিস কক্ষ হতে বের করে দেওয়া হয়। আমরা শিক্ষার্থীগণ ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের ও উনার অফিসের লোকজনের এহেন আচরণে অতিষ্ঠ হয়ে উঠেছে। যাহার কারণে ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষের ও অফিস সহকারীর পদত্যাগ সহ অপসারণ দাবি করছি।

এ বিষয়ে নবীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা শেখ মহি উদ্দিন দৈনিক আমার হবিগঞ্জকে জানান, লিখিত অভিযোগ পেয়েছি। যাচাই-বাছাই করে এই বিষয়ে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Developed By The IT-Zone