ঢাকাবুধবার , ১১ মার্চ ২০২০
আজকের সর্বশেষ সবখবর

নবীগঞ্জে ৪টি গাড়ি,নগদ অর্থ ও স্বর্ণালংকার নিয়ে বাড়ির কেয়ারটেকার লাপাত্তা

দৈনিক আমার হবিগঞ্জ
মার্চ ১১, ২০২০ ৮:৫২ পূর্বাহ্ণ
Link Copied!

মোঃ তাজুল  ইসলাম ,নবীগঞ্জ থেকে :  হবিগঞ্জের নবীগঞ্জ উপজেলায় এক লন্ডন প্রবাসীর ৪টি দামি গাড়ি ও স্বর্ণালংকারসহ কয়েক কোটি টাকা নিয়ে কেয়ার টেকার চম্পট দিয়েছেন বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।
সম্প্রতি ঘটনাটি ঘটেছে নবীগঞ্জ উপজেলার দিনারপুর অঞ্চলের গজনাইপুর গ্রামে। এ ঘটনার পর দিনারপুরজুড়ে রীতিমত তোলপাড় চলছে।
এদিকে প্রতারণার শিকার হয়ে অবশেষে প্রবাসী নূর মিয়া ওরফে ইকবাল বাদি হয়ে হবিগঞ্জের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আমল আদালতে মামলা দায়ের করেছেন। মামলার আসামীরা হলেন- গজনাইপুর গ্রামের সৈয়দ উল্লার পুত্র প্রবাসীর বাড়ির কেয়ার টেকার মোঃ ইয়াহিয়া ও আফজাল মিয়া।

এজাহার সূত্রে জানা যায়, গজনাইপুর গ্রামের মোঃ আব্দুল্লাহ‘র পুত্র নূর মিয়া ওরপে ইকবাল দীর্ঘদিন ধরে লন্ডনে বসবাস করে আসছেন। তিনি লন্ডনে থাকায় তার পারিবারিক ও ব্যবসা সংক্রান্ত কাজের জন্য একই গ্রামের মোঃ ইয়াহিয়াকে কেয়ার টেকার হিসেবে নিযুক্ত করেন। প্রবাসী ইকবাল সরল মনে বিশ্বাস করে ইয়াহিয়ার কাছে বিভিন্ন সময়ে কয়েক কোটি টাকা প্রেরণ করেছেন।
এমনকি ইকবালের ১ কোটি ১৫ লাখ টাকা মূল্যের বিভিন্ন মডেলের মাইক্রোবাসসহ ৪টি গাড়িও কেয়ার টেকার ইয়াহিয়ার কাছে ছিল। বিগত ৫ বছর যাবৎ সে গাড়ির ভাড়া নিয়মিত সংগ্রহ করে তার কাছে জমা রাখতেন। কিন্তু ইদানিং কেয়ার টেকার ইয়াহিয়ার কাছে টাকার হিসাব চাইলে সে সঠিক মতো হিসাব দিতে পারেনি। এক পর্যায়ে ইয়াহিয়ার আচার আচরণে প্রবাসীর ইকবালের মনে সন্দেহের সৃষ্টি হয়, পরে কেয়ারটেকারের দায়িত্বে থাকা ৪টি গাড়ি ফেরত চাইলে সে দিতে ‘নয়-ছয়’ কথা বলে।
মামলায় আরো উল্লেখ করা হয়, এছাড়া সিলেট শহরে ওই প্রবাসীর মালিকানাধীন এক্সেল টাওয়ারের বিভিন্ন কাজ এবং ভাড়াটিয়ার নিকট থেকে ভাড়া আদায় করে প্রায় ৪০ লাখ টাকা ইয়াহিয়ার কাছে জমা ছিল। এমনকি প্রবাসী ইকবালকে না জানিয়ে তার ভাই আফজাল মিয়ার ইন্ধনে ইকবালের জমি ওই এলাকার ৪ জনের নিকট ১০ লাখ টাকার বিনিময়ে বন্ধক দেয় প্রতারক ইয়াহিয়া।
এদিকে গত ১ মার্চ রাত ১২টার দিকে প্রবাসীর ঘরে থাকা নগদ ৪ লাখ টাকা ও ১০ ভরি স্বর্ণ চুরি করে নিয়ে পালিয়ে যায় প্রতারক ইয়াহিয়া। এর আগেই গাড়িগুলোও বাড়িতে না রেখে অন্যত্র সরিয়ে ফেলে ইয়াহিয়া।
সম্প্রতি দেশে আসা প্রবাসী নূর মিয়া ওরপে ইকবাল বিভিন্নভাবে অনুসন্ধান করে প্রতারক ইয়াহিয়ার কোন হদিস না পেয়ে এলাকার মুরুব্বীয়ানদের বিষয়টি অবহিত করেন। তারাও প্রতারকের কোন খোঁজ না পাওয়ায় এবং এ ঘটনার সুষ্ট সমাধান করতে না পারায় প্রবাসী নূর মিয়া ওরফে ইকবাল বাদি হয়ে গত রোববার (০৮ মার্চ) হবিগঞ্জের সিনিয়র জুডিসিয়াল ম্যাজিষ্ট্রেট আমল আদালতে মামলা দায়ের করেছেন। আদালত মামলাটি আমলে নিয়ে নবীগঞ্জ থানার ওসিকে তদন্ত পূর্বক ব্যবস্থা গ্রহণের নির্দেশ দেন।
এছাড়াও প্রতারণার শিকার প্রবাসী হবিগঞ্জ জেলা প্রশাসক ও জেলা পুলিশ সুপার বরাবরে প্রতারণার প্রতিকার চেয়ে দরখাস্ত করেছেন। এ ঘটনায় ক্ষুব্ধ এলাকার অন্যান্য প্রবাসীরাও।
তারা বলেন, কেয়ার টেকারদের বিশ্বাস করে কোটি কোটি টাকার সম্পদ তাদের কাছে রেখে যান। কেয়ার টেকারা যদি এহেন কান্ড করে তাহলে তারা কাকে আর বিশ্বাস করবেন। এ ঘটনার নায়ক প্রতারক ইয়াহিয়াকে আইনের আওতায় এনে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবি জানান সচেতন মহল।

Developed By The IT-Zone